হচ্ছেটা কি এসব ওমানে??

হচ্ছেটা কি এসব ওমানে??




ওমানের মাটিতে ওমান-স্কটল্যান্ড তিন ম্যাচের সিরিজ চলছে। ওমানের ওয়ানডে স্ট্যাটাস নেই তাই এগুলো শুধু ৫০-ওভার ম্যাচ।

স্কটল্যান্ড মাত্র ২ দিন আগেই টি-টুয়েন্টি টুর্নামেন্ট জিতেছে চারজাতি।

৫০ ওভার ম্যাচ সিরিজের প্রথম ম্যাচে ওমান অল-আউট হয়েছিলো মাত্র ২৪ রানে। অবিশ্বাস্য হলেও সত্যি।

তার ভেতর ৩ নাম্বারে নামা খাওয়ার আলি একাই করেন ১৫ রান ৩৩ বলে। ছয়জন ব্যাটসম্যান আউট হয়েছিলেন শুন্য মানে 0 রানে! ১৭.১ ওভারের ইনিংসে বাউন্ডারি একটা।

স্কটল্যান্ডের নেইল, স্মিথ ৪-উইকেট করে নিয়েছিলেন। ইভান্স দুটি।

৩.১ ওভারে ১০ উইকেটের জয় পায় স্কটল্যান্ড।

অবাক হয়েছি দ্বিতীয় ম্যাচের স্কোরকার্ড দেখে।

ওমান স্কটল্যান্ডকে হারিয়ে দিয়েছে ৯৩ রানের বিশাল ব্যবধানে


ওমান আগে ব্যাট করে ২৪৮/৮ রান তুলেছিলো।

জাতিন্দার সিং ৩০ (৪৪), খাওয়ার আলি ৪৪ (৮৬), মোহাম্মাদ নাদিম ৬৪ (৮৩) রান করেন। তবে ওমানকে চ্যালেঞ্জিং স্কোর এনে দেন সাত নাম্বার ব্যাটসম্যান খুররাম নাওয়াজ, ৪৫ বলে ৬৫ রান করেন তিনি, তিনটি বাউন্ডারি আর পাঁচটি ছয়ের সাহায্যে।

রান তাড়া করতে নেমে ৪০ ওভারে ১৫৫ রানে গুটিয়ে যায় স্কটল্যান্ড। রিচি বেরিংটন ৩৭, জর্জ মানশে ৩৪ এবং মার্ক ওয়াট ৩৬ রান ছাড়া আর কেউ দাঁড়াতে পারেননি।

৯৬/৩ থেকে স্কটল্যান্ড ১৫৫ রানে অল-আউট হয়ে যায়।

ওমানের দুই পেসার দারুন বল করেছেন, বিলাল খানের বোলিং ফিগারঃ ৮-২-১৬-২ (ডট বল ৩৪)

কালেমউল্লাহঃ ৮-০-২৩-২ (ডট বল ৩৬)

এদের টাইট বোলিং এর ফায়দা নিয়েছেন স্পিনাররা।

মোহাম্মদ নাদিমঃ ৮-০-৩৮-৩
বাদল সিংঃ ১০-১-২৫-৩ (৪৩ ডট বল)

মোহাম্মাদ নাদিম ৬৪ রান এবং ৩ উইকেট নিয়ে ম্যাচ সেরা হন।

ওমানের লিস্ট "এ" ইতিহাসে এটাই সবচেয়ে বড় ম্যাচ জয় বলছেন অনেকে। সিরিজে ১-১ সমতা এখন।

সিরিজের শেষ ম্যাচ ২২ তারিখ। আমি চাই স্কটল্যান্ড সিরিজ জিতুক।

তবে ওমানের এই মারাত্মক ফাইট-ব্যাক খুব ভালো লেগেছে।

No comments

Powered by Blogger.